আলহামদুলিল্লাহ্‌, ইতমধ্যে কোর্সে ১ হাজার +  ১ হাজার +  ১ হাজার +  শিক্ষার্থী জয়েন করেছেন

আপনি কি নিজেই ল্যান্ডিং পেজ ডিজাইন করার স্বপ্ন দেখছেন, কিন্তু ভয় পাচ্ছেন যে - আপনি পারবেন কি না?

অন্যদের মত আপনিও যদি নিজেই আপনার বিজনেসের জন্য একটা প্রফেশনাল মানের ল্যান্ডিং পেজ ডিজাইন করার পাশাপাশি সেখানে পিক্সেল সেটাপ করে ফেসবুকে সেলস ক্যাম্পেইন রান করার স্টেপ বাই স্টেপ গাইডলাইন পেতে চান, এই কোর্সটি হতে পারে আপনার জন্য পারফেক্ট একটি সলুশ্যন।

কোর্সের রেগুলার প্রাইসঃ 10,000 টাকা

স্পেশাল অফারে শেখার সুবর্ণ সুযোগ

৬০% ডিস্কাউন্টে অফার প্রাইসঃ 4000 টাকা

Days
Hours
Minutes
Seconds

যে ৬ টি কারণে আপনি নিজে ল্যান্ডিং পেজ ডিজাইন শেখাটা একটা স্মার্ট ডিসিশন হবে

অন্যের উপর নির্ভরশীল না হয়ে, আত্ননির্ভরশীল ও সাহসী হয়ে উঠুন

অন্যকে দিয়ে ল্যান্ডিং পেজ করিয়ে নিতেই পারেন কিন্তু আপনি সাহসী হয়ে উঠবেন না। ওয়েবসাইট পরিচালনা করতে গেলে বা টুকটাক ইডিট করতে গেলেই আপনার হাত কাঁপবে বা ভুলে কোন কিছু ডিলেট হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনাই বেশি। কিন্তু নিজে শিখে নিলে অন্যের উপর নির্ভরশীলতা কমে যাবে এবং সাহসিকতার সাথে ওয়েবসাইট পরিচালনা ও ইডিট করতে পারবেন।

বার বার টাকা খরচ করা বন্ধ করুন, সঠিক জায়গায় ব্যয় করুন

একটা প্রোডাক্টের জন্য ল্যান্ডিং পেজ ডিজাইন করিয়ে নিলেই কাজ শেষ নয়। নতুন নতুন প্রোডাক্টের জন্য আরো ল্যান্ডিং পেজ লাগবে, সেগুলোর জন্য প্রতিনিয়ত আপনাকে টাকা খরচ করতে হবে। নিজে একবার শিখে নিতে পারলে প্রতিটি ল্যান্ডিং পেজ ডিজাইন করতে যে হিউজ টাকা খরচ হত সেটা সেভ করতে পারছেন। টাকাগুলো নিজের মার্কেটিং ক্যাম্পেইনে কাজে লাগাতে পারবেন।

অন্যের জন্য অপেক্ষা করে সময় নষ্ট করা বন্ধ করুন

টুকটাক ইডিট করা বা যেকোন সমস্যায় পড়লে ঐ ডেভেলপারের জন্য অপেক্ষা করতে হবে। ডেভেলপার ব্যস্ত থাকলে বা ছুটিতে থাকলে আপনার কাজ বন্ধ থাকবে। কিন্তু নিজে শিখে নিতে পারলে, নিজের মনমত যখন খুশি তখন সবকিছু ইডিট করতে পারছেন। সমস্যায় পড়লে আমাদের সাপোর্ট গ্রুপের মাধ্যমে সমস্যার সমাধান নিজে করতে পারছেন। একবার চিন্তা করে দেখুন কত সময় সেভ করতে পারছেন।

নিজের মেধা কাজে লাগিয়ে পাওয়ারফুল সেলস পেজ (ল্যান্ডিং পেজ) তৈরি করুন

অন্যকে দিয়ে যখন ল্যান্ডিং পেজ ডিজাইন করিয়ে নিবেন তখন আপনার ব্রেণ স্টোরমিং এর আর সুযোগ থাকবেনা এবং সেই ডেভেলপারও আপনার ল্যান্ডিং পেজের কন্টেন্ট নিয়ে কোন চিন্তা করবে না। নতুন কোন হুক, বেনিফিটস, আইডিয়া, কন্টেন্ট ইত্যাদি আপনার মাথা থেকে বের হবে না। কিন্তু আপনি নিজে যখন ডিজাইন করতে যাবেন, হেডলাইন, বেনেফিটস ইত্যাদি লেখার সময় নতুন নতুন আইডিয়া আপনার মাথায় আসবে, এতে করে একটা পারফেক্ট ও পাওয়ারফুল ল্যান্ডিং পেজ আপনি তৈরি করতে পারবেন।

যখন খুশি তখন মাত্র কয়েক ক্লিকে ল্যান্ডিং পেজ ডিজাইন করুন

আমরা সব থেকে সহজ উপায়ে একটা রেডিমেড ল্যান্ডিং পেজ টেমপ্লেট ব্যবহার করে মাত্র কয়েক ক্লিকে ল্যান্ডিং পেজ তৈরি করার সিক্রেট পদ্ধতি শিখিয়ে দেব। আপনার যখন খুশি, তখন আনলিমিটেড ল্যান্ডিং পেজ তৈরি করতে পারবেন।

নতুন নতুন স্কিল শেখার প্রতি নিজেকে আগ্রহী করে তুলুন

আপনি আমাদের এই ল্যান্ডিং পেজ ডিজাইন কোর্সটি করার পর, নতুন কোন স্কিল শেখার প্রতি অন্য ধরণের একটা অনুপ্রেরণা পাবেন, ইনশাআল্লাহ্‌। আপনি চিন্তা করবেন যে , আসলে কোন কিছুই কঠিন না, চেষ্টা করলে সব কিছুই সহজ।

আমাদের কোর্সেই কেন জয়েন করবেন?

আলহামদুলিল্লাহ্‌, স্পেশালি বাংলাদেশের নতুন উদ্যোক্তাদের জন্য (যারা ননটেক-পার্সন) আমরাই প্রথম ল্যান্ডিং পেজ ডিজাইন কোর্সটি নিয়ে এসেছিলাম এবং সফলতার সাথে সেটা কন্টিনিউ করে যাচ্ছি। এখন পর্যন্ত ১০০০+ অনলাইন উদ্যোক্তাকে আমরা এই ল্যান্ডিং পেজ ডিজাইনের উপর প্রশিক্ষণ দিয়েছি, আলহামদুলিল্লাহ্‌।

ভিডিও দেখতে কোন প্রকার বোরিং ফিল হবে না। মনে আনন্দ নিয়ে ভিডিও দেখবেন এবং প্র্যাকটিস করবেন। প্রতিটি টপিকের উপর ছোট ছোট ভিডিও করা, সো খুব সহজে সবকিছু বুঝতে পারবেন, ইনশাআল্লাহ্‌।

আপনাকে কয়েক হাজার টাকা সমমূল্যের যে টেমপ্লেটগুলো দেয়া হবে সেগুলো ব্যবহার করে খুবই সহজভাবে মুহূর্তের মধ্যে একটা ল্যান্ডিং পেজ ডিজাইন করে ফেলতে পারবেন।

শুধু একটা প্রোডাক্টের জন্যই না, আপনি যত খুশি তত প্রোডাক্টের জন্য ল্যান্ডিং পেজ তৈরি করতে পারবেন।

আপনাকে একটা সুন্দর হোম পেজ টেমপ্লেট দেয়া হবে, যেটার মাধ্যমে ওয়েবসাইটের প্রথম পেজে আপনার সকল প্রোডাক্টের ল্যান্ডিং পেজ গুলো লিংক করতে পারবেন।

কোর্স দেখার সময় কোন কিছু না বুঝলে, কোথায় আটকে গেলে সাপোর্ট এক্সপার্ট থেকে হেল্প নিয়ে আপনার সকল সমস্যার সমাধান করে নিতে পারবেন, ইনশাআল্লাহ্‌।

কি কি শিখতে পারবেন এই কোর্স থেকে?

৫০০০ টাকা মূল্যের ১ টি রেডিমেড টেমপ্লেট ফ্রি

কোর্সে এনরোল করলেই পাবেন ৫০০০ টাকা মূল্যের একটা রেডিমেড ল্যান্ডিং পেজ টেমপ্লেট ও হোম পেজ টেমপ্লেট একদম ফ্রি। যেটা ব্যবহার করে যেকোন প্রোডাক্টের জন্যই এক ক্লিকে ল্যান্ডিং পেজ তৈরি করে ফেলতে পারবেন, আপনাকে কষ্ট করে স্ক্রাচ থেকে ডিজাইন করতে হবে না। ইমপোর্ট করে জাস্ট আপনার কন্টেন্ট দিয়ে কাস্টমাইজ করে নিবেন।

Days
Hours
Minutes
Seconds

কোর্সের রেগুলার প্রাইসঃ ১০,০০০ টাকা

৬০% ডিস্কাউন্টে অফার প্রাইসঃ 4000 টাকা

স্পেশাল অফারে শেখার সুবর্ণ সুযোগ

আমাদের শিক্ষার্থীরা আমাদের সম্পর্কে কি বলে

প্রশ্নোত্তর

কোর্সটি রেকর্ডেড ভিডিও টিউটোরিয়াল কোর্স। আপনি কোর্সে জয়েন করার পর আপনার ইমেইলে একটা লগইন ডিটেইলস পাঠানো হবে। সেই লগইন ডিটেইলস দিয়ে আমাদের ওয়েবসাইটে লগইন করলে, আপনি ভিডিও দেখতে পারবেন। 

বিঃ দ্রঃ আপনি কেবল যেকোন একটা ডিভাইসে লগইন করতে পারবেন, মাল্টিপল ডিভাইসে লগইন করতে পারবেন না এবং সেটা অবশ্যই আপনার কম্পিউটার থেকে করতে হবে। প্লিজ, মোবাইল দিয়ে লগইন করবেন না (কারণ ছোট স্ক্রীনে ভালো বুঝতে পারবেন না, ভিডিও বাফারিং হবে)।

সাপোর্টের জন্য ফেসবুকে প্রাইভেট সাপোর্ট গ্রুপ রয়েছে। সমস্যায় পড়লে সেখানে বিস্তারিত লিখে বা ভিডিও রেকর্ড করে পোস্ট করবেন, আমাদের সাপোর্ট টিম আপনাকে যত দ্রুত সম্ভব সাপোর্ট দেয়ার চেষ্টা করবে। প্রয়োজনে কল করবে, আপনাকে টিমভিউয়ারে/ এনিডেস্কে এসে লাইভ সাপোর্ট দিবে, ইনশাআল্লাহ্‌।

লাইভ সাপোর্ট এর টাইমঃ সকাল ১০ টা – সন্ধ্যা ৬ টা।

বিঃ দ্রঃ ফোন কলে, ম্যাসেঞ্জারে বা হোয়্যাটসআপ এ কোন সাপোর্ট দেয়া হয় না। যেহেতু সাপোর্ট টাইম এর সময় (সকাল ১০ টা – সন্ধ্যা ৬ টা) উপরে বলা হইছে, সুতরাং, ঐ টাইমের মধ্যেই যথা সম্ভব দ্রুত সাপোর্ট দেয়ার চেষ্টা করি। অন্য টাইমে সাপোর্ট ধীরগতি হবে, এটাই স্বাভাবিক। আমরাও মানুষ, আমাদেরও পরিবার, কাজ ইত্যাদি রয়েছে সো সবসময় যে ইনস্টান্ট সাপোর্ট পাবেন, এটার নিশ্চয়তা আমরা দিতে পারিনা।

আপনি যে প্যাকেজে ইনরোল করবেন , সেই প্যাকেজের নির্ধারিত সময় পর্যন্ত ঐ কোর্সের ভিডিও অ্যাক্সেস ও সাপোর্ট গ্রুপের অ্যাক্সেস পাবেন। চেক আউট ফর্মের উপরে প্যাকেজ সম্পর্কে বিস্তারিত পেয়ে যাবেন।

কোর্সটি থেকে তারাই সব থেকে বেশি লাভবান হতে পারবেন, যারা অনলাইনে ইতমধ্যে বিজনেস করছেন, ফেসবুকে টুকটাক অ্যাড রান করেছেন।

যে কখনো অনলাইনে বিজনেসই করেন নাই, সে এখান থেকে চাইলে কোর্সের বিষয়গুলো জানতে ও শিখতে পারবেন কিন্তু কাজে লাগাতে পারবেন কিনা, সেটা আপনার উপর নির্ভর করছে।

স্কুলে ভর্তি হলেই যেমন জিপিএ ৫ পেয়ে যাবেন না কিংবা  স্কুল জীবন শেষ করলেই চাকরি পেয়ে যাবেন না। সুতরাং, কোর্সে জয়েন করলেই প্রোডাক্টের সেল বেড়ে যাবে, এটা চিন্তা করা বোকামি। আপনাকে কোর্সটি আয়ত্ত করতে হবে, ল্যান্ডিং পেজের কন্টেন্ট ভালো হতে হবে, অ্যাড কপি ভালো হতে হবে, আপনার প্ল্যান ঠিক আছে কিনা ইত্যাদি আরো অনেক বিষয় রয়েছে, সেগুলো ঠিক না থাকলে প্রোডাক্টের সেল বাড়বে কিভাবে, বলুন।

জয়েন করার পূর্বে অবশ্যই পড়ে নিবেন: ক্লিক করুন

আপনার কাঙ্ক্ষিত ল্যান্ডিং পেজ দেখার জন্য রেডি তো ?

তাহলে আর দেরি কেন, কোন প্রকার কোডিং ছাড়া আপনার স্বপ্নের ল্যান্ডিং পেজ তৈরি করা শুরু হোক আজই। মাত্র ৭-১০ দিনের মধ্যেই আপনার হাতেই তৈরি হয়ে যাবে আপনার স্বপ্নের ল্যান্ডিং পেজ।

কোর্সের রেগুলার প্রাইসঃ ১০,০০০ টাকা

৬০% ডিস্কাউন্টে অফার প্রাইসঃ 4000 টাকা

স্পেশাল অফারে শেখার সুবর্ণ সুযোগ
Days
Hours
Minutes
Seconds