আপনার মনের মধ্যে হয়ত অনেক প্রশ্ন ঘুরপাক খাচ্ছে, আশা করি নিচের প্রশ্নোত্তর গুলো দেখলে অনেক প্রশ্নের উত্তর পেয়ে যাবেন

প্রশ্ন:০১ – এই কোর্সগুলি কোন লাইভ ক্লাস হবে?
উত্তর: না ভাই/বোন। এগুলি রেকর্ড করা ভিডিও টিউটোরিয়াল হিসাবে আপলোড করা হয়। আপনি যখনই চান আপনার অ্যাকাউন্টে লগইন করতে এবং ভিডিও দেখতে পারবেন। অনেকটা ইউডেমি / লারাকাস্টের কোর্সের মতো।

প্রশ্ন:০২ – কাজ করতে গেলে সমস্যায় পড়লে তখন কি করব?
উত্তর: সাপোর্ট এর জন্য আমাদের ফেসবুক সিক্রেট গ্রুপ রয়েছে সেখান থেকে সমস্যার সমধান পাবেন এবং যদি লাইভ সাপোর্ট এর দরকার হয় তাহলে টিম ভিউয়ার এর মাধ্যমে সাপোর্ট দেয়া হয়।

প্রশ্ন:০৩ – প্রিমিয়াম থিম ও প্লাগিন কি কি দিবেন এবং সেগুলো কি ক্লায়েন্টের কাজের জন্য ব্যবহার করতে পারব কি না?
উত্তরঃ আমরা যেসব বিষয়ের উপর কাজ করে দেখাব, সেগুলো অনুশীলন এর জন্য থিম ও প্লাগিন দিব। কিন্তু এগুলোর মধ্যে বেশিরভাগই আপনি ক্লায়েন্ট এর কাজের জন্য ব্যবহার করতে পারবেন না। যেগুলো পারবেন সেগুলো আমরা সেখানে বলেই দিব কোন টা ব্যবহার করতে পারবেন। কেন পারবেন না সে বিষয়ে বলি, একটা প্রিমিয়াম থিম বা প্লাগিন কেনার পর সেখানে একটা লাইসেন্স কোড থাকে এবং সেই লাইসেন্স কি শুধুমাত্র একটা ডোমেইন এ আপনি ব্যবহার করতে পারবেন ( যদি আপনি এক্সটেন্ডেড লাইসেন্স বা যেসব থিম বা প্লাগিন এর আনলিমিটেড প্যাকেজ আছে সেগুলো ক্রয় করে থাকেন সেটা ভিন্ন কথা)। অনেক থিম আছে যেগুলো ইনস্টল করার পর লাইসেন্স কোড আক্টিভেট করা লাগে না সেগুলো আপনি আনলিমিটেড ব্যবহার করতে পারেন। এখন থিম ফরেস্ট এর একটা থিমের মূল্য যদি ৬০ ডলার ধরি এবং সেটার লাইসেন্স কোড কেবল একটা ওয়েবসাইটেই ব্যবহার করা যায়, তাহলে আমরা কয়জনকে এবং কতগুলো থিম কিনে দেব, আপনিই চিন্তা করেন। আমরা যেটা দিব সেটা শুধুমাত্র আপনার অনুশীলন এর জন্যই দিব। আরেকটা কথা মাথায় রাখবেন একটা ভালো ক্লায়েন্ট একটা ওয়েবসাইট তৈরি করতে এসে আপনাকে একটা থিম কিনে দিতে পারবে না এটা ভাববেন না।

প্রশ্ন:০৪ – অন্যান্য প্রতিষ্ঠান যে অনেক প্রিমিয়াম থিম দিচ্ছে ফ্রিতে এবং আপনাদের কোর্স থেকে ও তাদের কোর্স ফি অনেক কম নিচ্ছে?
উত্তরঃ উপরে এটা নিয়ে আমি বিস্তারিত বলেছি আর বলার কিছু নাই। কোর্স ফি কম আর বেশি সেটা নির্ভর করে সে প্রতিষ্ঠানের উপর। আপনার যেখানে ভালো লাগে সেখানে যেতে পারেন, কোর্সে কন্টেন্ট এর পরিমাণ এবং কোয়ালিটি যাচাই করে নিবেন। তবে লক্ষ লক্ষ টাকার থিমের অফার দেখে ঝাপিয়ে না পড়ে বিষয়টা আগে ভালোভাবে বুঝে শুনে নিবেন। 
প্রশ্ন: ০৫ – আপনারা কি আপওয়ার্কে অ্যাকাউন্ট আপ্রুভ / বা ফাইভারে কাজ পাইয়ে দেন?

উত্তর: দুঃখিত, এবিসি আইটি পার্ক আপনাকে দক্ষতা বিকাশে সহায়তা করবে, আপনাকে কাজটি শিখতে হবে। আমরা আপওয়ার্কে অ্যাকাউন্ট আপ্রুভ করে দেইনা এবং  আমরা ফাইভারেও কাজ পাইয়ে দেই না । কীভাবে অ্যাকাউন্ট খুলবেন, গিগ কীভাবে খুলবেন, ফাইভারে কাজটি সম্পন্ন করার জন্য আপনার কী পদক্ষেপ গ্রহণ করা উচিত তা নিয়ে কোর্সের একেবারে শেষে আলোচনা করা হয়েছে। আপনার যদি প্রতিভা থাকে তবে আপনি নিজে আপওয়ার্কে কাজ করতে সক্ষম হবেন। আমাদের শিক্ষার্থীদের কাউকেই আপওয়ার্কে অ্যাকাউন্ট খুলে দেইনি, তবে অনেকেই এখন আপওয়ার্কে কাজ করছে। প্রথমে কাজ শিখুন, দক্ষ হোন, দেখুন সবকিছু আস্তে আস্তে নিজেই পারবেন।

প্রশ্ন: ০৬ – আমি আপনাদের কোর্সটিতে ভর্তি হলে কি টাকা ইনকাম করতে পারব?
উত্তর: আপনার কাছে প্রশ্ন জিজ্ঞাসা করা স্বাভাবিক। তবে আপনি কি ভাবেন না যে প্রশ্নটি একটু বেশি অস্বাভাবিক হয়ে গেছে, অনেক টা এমন যে, আমি আপনার স্কুলে ভর্তি হলে চাকরি পাব? মনে রাখবেন, ভাল কাজ জানলে, দক্ষতা থাকলে ইনশাআল্লাহ আপনি সফল হবেন, তবে আপনি যদি কাজটি ভালোভাবে না শিখেন, সমস্ত মার্কেট প্লেসে অ্যাকাউন্ট খুলবেন, কাজের পিছনে দৌড়াবেন কিন্তু আপনি কাজ পাবেন না।  আলহামদুলিল্লাহ,  অনেকে আমাদের এখানে ভর্তি হয়ে ভাল কাজ শিখেছে, শিখছে এবং  তারা মার্কেট প্লেসে কাজ করছে আবার এমন অনেকে আছেন যারা এখনও চেষ্টা করছেন এবং অনেকে হারিয়ে গেছেন…।

প্রশ্ন: ০৭ – কোর্সটিতে অ্যাক্সেস কতদিন থাকবে?
উত্তরঃ লাইফ টাইম অ্যাক্সেস থাকবে। 

আরো কিছু জানার থাকলে আমাদের লাইভ চ্যাট বক্সে প্রশ্ন করুন আমরা যত তাড়াতাড়ি সম্ভব উত্তর দেয়ার চেষ্টা করব।
ধন্যবাদ।

Don`t copy text!